web analytics
international

বিনা ভাড়ায় ট্রাম্পের মস্তিষ্কে বসবাস করেন হিলারি

সাবেক সেক্রেটারি অফ স্টেট হিলারি ক্লিনটন বলেছেন, প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প জাতিকে বিভ্রান্ত করতে প্রায়ই তাকে আক্রমণ করে কথা বলেন। রিপাবলিকান সমর্থকদের সমালোচনা এবং নিজের কিছু সমস্যা থেকে বাঁচতে ট্রাম্প এ কৌশল বলে মনে করেন তিনি। বুধবারে এনবিসি নিউজকে দেয়া একান্ত সাক্ষাৎকারে রবার্ট মুলারের তদন্ত প্রতিবেদন নিয়েও কথা বলেন হিলারি ক্লিনটন।

এ বছরের প্রথম টেলিভিশন অনুষ্ঠানে এনবিসি নিউজ এর ‘দা রেসলম্যাডো’ শো’তে উপস্থিত হন সাবেক ডেমোক্রেটিক প্রেসিডেন্ট প্রার্থী ও সেক্রেটারি অফ স্টেট হিলারি ক্লিনটন। এতে স্পেশাল কাউন্সেল রবার্ট মুলারের তদন্ত প্রতিবেদনের একটি অংশ নিয়ে হিলারির সাথে আলোচনা করেন সঞ্চালক। যেখানে বলা হয়েছে প্রেসিডেন্ট তখনকার অ্যাটর্নি জেনারেল জেফ শেসন্সকে হিলারির ব্যাপারে তদন্ত করতে চাপ দিয়েছিলেন। অবশ্য অ্যাটর্নি জেনারেল উইলিয়াম বার এ ঘটনায় সেনেট জুডিশিয়ারি কমিটিতে ওইদিন কোনো মন্তব্য করেননি।

হিলারি এ প্রসঙ্গে বলেন, বারের নিশ্চুপ থাকাটা অপরাধবোধ প্রকাশের একটি বড় চিহ্ন। আর প্রেসিডেন্ট প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ট্রাম্পের মস্তিষ্কে বিনা ভাড়ায় বসবাস করেন হিলার, যদিও সেটা খুব একটা ভালো যায়গা নয়। তিনি বলেন, ট্রাম্প তার বিরুদ্ধে কী মনে করে তদন্ত করাতে চেয়েছিলেন তা হিলারি বুঝে উঠতে পারছেন না।

নির্বাচনের আগে বেঙ্গাজ্জি শুনানিসহ নানা বিষয়ে যেসব অভিযোগ তার বিরুদ্ধে আনা হয়েছিল এসবই ওই প্রক্রিয়ার অংশ ছিল বলে অভিযোগ করেন হিলারি।

এমন নানামুখী সব আক্রমণ এবং কর্মকাণ্ডের মাধ্যমে ট্রাম্প ও রিপাবলিকানরা মূলত জাতির মনোযোগ ভিন্নখাতে প্রবাহিত করার চেষ্টা করেন বলেও মন্তব্য করেছেন সাবেক সেক্রেটারি অফ স্টেট।

হিলারি অনুষ্ঠানে আরো বলেন, মহান আমেরিকার হোয়াইট হাউসে এবং জনগণের আকাঙ্ক্ষা পূরণের স্থান কংগ্রেসে যা কিছু হচ্ছে এ সবই তাকে ব্যাপকভাবে বিমর্ষ করে।

এ সময় নির্বাচনে জাতি বুঝে শুনে তাদের আগামী নেতৃত্ব বেছে নেবে বলে আশাও প্রকাশ করেন সাবেক এই প্রেসিডেন্ট প্রার্থী।

Tags

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button
Close
Close